বাংলাদেশ সফরে আসছে উইন্ডিজ দেখেনিন জানুয়ারিতে চূড়ান্ত সময়সূচী

অন্যান্য দেশগুলো আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরেছে অনেক আগেই। বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলও আন্তর্জাতিক ম্যাচ এ ফিরছে খুব ১০ মাস পর।

পরিস্থিতি অনূকূলে থাকলে আগামী জানুয়ারিতেই টেস্ট ও ওয়ানডে সিরিজ খেলার জন্য বাংলাদেশ আসবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ জাতীয় ক্রিকেট দল।

বাংলাদেশের খেলা আরো একটা সিরিজ বাড়তে পারতো। কেননা আইসিসির ফিউচার ট্যুর প্রোগ্রাম অনুসারে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাথে ঘরের মাঠে ৩ ওয়ানডে, ৩ টেস্ট ও ২ টি-টোয়েন্টি ম্যাচের সিরিজ খেলার কথা ছিল জাতীয় দলের।

কিন্তু করোনা ঝড়ে সব বদলে গেল। করোনার কারণে টি-টোয়েন্টি সিরিজ বাদ দেওয়া হয়েছে এমনকি একটা টেস্ট ম্যাচও বাদ যেতে পারে।

এই সিরিজ নিয়ে ইতিমধ্যেই বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডকে সবুজ সংকেত দেখিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ড। দুই বোর্ড মিলে সম্পূর্ণ সিরিজের সফরসূচিও ঠিক করে ফেলেছে।

সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে আগামী ১০ জানুয়ারি ঢাকায় পা রাখবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ জাতীয় ক্রিকেট দল। ওয়েস্ট ইন্ডিজ জাতীয় ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়দের একাধিকবার করোনা টেস্ট করানো হবে ১৩ তারিখের মধ্যে।

যাদের নেগেটিভ আসবে তাদের নিয়ে ১৩ তারিখই অনুশীলনে নেমে পরবে।পরেই ওয়ানডে সিরিজ দিয়ে এই সিরিজের সূচনা হবে। পরিস্থিতি অনূকূলে থাকলে শেরে-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে ২০ জানুয়ারি।

এরপর একই স্টেডিয়ামে ২২ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হবে দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচ।এরপর ২৩ জানুয়ারি দুই দল যাবে চট্টগ্রাম। ২৫ জানুয়ারি তারিখে চট্টগ্রামে অনুষ্ঠিত হবে শেষ ওয়ানডে ম্যাচ।

তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজের পরিবর্তে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজের জন্য বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডকে প্রস্তাব দিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ড।আর সেরকম হলে ২৯ জানুয়ারি বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল প্রথম টেস্ট খেলতে মাঠে নামবে ওয়েস্ট ইন্ডিজদের বিরুদ্ধে।

মিরপুরে অনুষ্ঠিত হবে ২য় ও শেষ টেস্ট ম্যাচ। দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচ শুরু হবে ৫ ফেব্রুয়ারি। এরপর ১০ ফেব্রুয়ারি ঢাকা ত্যাগ করবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ জাতীয় ক্রিকেট দল।

বাংলাদেশ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজের মধ্যকার সম্ভাব্য সময়সূচী

ওয়ানডে সিরিজ
প্রথম ওয়ানডে : ২০ জানুয়ারি, মিরপুর
দ্বিতীয় ওয়ানডে : ২২ জানুয়ারি, মিরপুর
তৃতীয় ওয়ানডে : ২৫ জানুয়ারি, মিরপুর

টেস্ট সিরিজ
প্রথম টেস্ট : ২৯ জানুয়ারি – ২ ফেব্রুয়ারি, চট্টগ্রাম
দ্বিতীয় টেস্ট : ৫-৯ ফেব্রুয়ারি, মিরপুর