কথাটা আমি এভাবে বলিনি: অপু বিশ্বাস

সম্প্রতি ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে এক সাক্ষাৎকার দিয়েছেন অপু বিশ্বাস। জীবনে কোন ঘটনাটি না ঘটলে ভালো হতো– এমন প্রশ্নের উত্তরে ওই সংবাদমাধ্যমকে অপু বলেন,

‘অবশ্যই বলব শাকিব খানের সঙ্গে বিয়েটা। এত দ্রুত বিয়ে, বাচ্চা; সবটাই তাড়াতাড়ি করে ফেলেছি। এটা যদি সময় নিয়ে করতাম, বুঝে করতাম, তাহলে ভালো হতো।’

বিষয়টি দেশের একাধিক সংবাদমাধ্যমেও আসে। এরপরই অপু বিশ্বাস দাবি করেন তার বক্তব্য সঠিকভাবে তুলে ধরা হয়নি। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এক ভিডিও বার্তায় এ কথা জানান তিনি।

অপু বলেন, ‘অনলাইনগুলোতে যেভাবে নিউজ হচ্ছে, হেডলাইন হচ্ছে, আসলে কথাটা আমি এভাবে বলিনি, বা আমি এভাবে বোঝাতে চাইনি।’

এরপর এই অভিনেত্রী বলেন, ‘আমি প্রথমে বলতে চাই। আমার সন্তানকে নিয়ে আমার পথচলা, যুদ্ধ– আপনারা দেখেছেন। আমি আসলে কথার পরিপ্রেক্ষিতে বলছি অল্প বয়সে বিয়ে করেছি, অল্প বয়সে বাচ্চা নিয়েছি।

হয়তো এই সিদ্ধান্তগুলো ভুল থাকলেও থাকতে পারে, বা ভুল ছিল। কিন্তু আমার সন্তানের জন্য কোনো ভুল নেই। আমার সন্তানের জন্য সব স্যাক্রিফাইস করতে পারি।

আজকেও করছি, আগামীতেও করব।’সবশেষে সংবাদকর্মীদের উদ্দেশ্যে এই অভিনেত্রী বলেন, ‘আমি মনে করি সম্পূর্ণ ক্যারিয়ারে আপনাদের সাপোর্ট আছে।

আমি জানি আমার সন্তানও আপনাদের কারণে সবার কাছে আজ এত প্রিয়। আপনারা যদি আমার ইমোশন না বুঝে লিখে থাকেন, তাহলে সংশোধন করে লিখবেন।’

আগামী মাসে মুক্তি পাবে তার অভিনীত টলিউড চলচ্চিত্র ‘আজকের শর্টকাট’। এই সিনেমার মাধ্যমেই প্রথমবার কলকাতার সিনেমায় যুক্ত হয়েছেন এই নায়িকা।

সিনেমাটি নির্মিত হয়েছে কণ্ঠশিল্পী নচিকেতা চক্রবর্তীর গল্পে। অপু ছাড়াও এতে অভিনয় করেছেন গৌরব চক্রবর্তী, পরমব্রত চ্যাটার্জি প্রমুখ। এই ছবি নির্মাণ করেছেন সুবীর মণ্ডল।প্রসঙ্গত,

বর্তমানে অপু বিশ্বাস অবস্থান করছেন কলকাতায়। সেখানে তিনি প্রথমবারের মতো সিনেমায় অভিনয় করেছেন। নাম ‘আজকের শর্টকাট’।

কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী নচিকেতা চক্রবর্তীর গল্পে নির্মিত হয়েছে এটি। পরিচালনা করেছেন সুবীর মণ্ডল। এতে অপুর সঙ্গে আরও অভিনয় করেছেন গৌরব চক্রবর্তী, পরমব্রত চ্যাটার্জি প্রমুখ।

আগামী ১৬ সেপ্টেম্বর মুক্তি পাচ্ছে সিনেমাটি।উল্লেখ্য, শাকিব খান ২০০৮ সালের এপ্রিলে তাঁর সর্বাধিক সিনেমার নায়িকা অপু বিশ্বাসকে গোপনে বিয়ে করেন। প্রায় ১০ বছর পর বাচ্চাসহ সেই খবর প্রকাশ্যে নিয়ে আসেন অপু। আর তাতেই বেঁকে বসেন শাকিব, ২০১৮ সালে বিচ্ছেদ হয় এই তারকা দম্পতির। সাবেক এ যুগলের আব্রাম খান জয় নামে এক পুত্রসন্তান আছে।