আমি ভেবেছিলাম ম্যাচটি আমাদের হাতেই আছে: সাকিব

ছোট লক্ষ্যটাই একটা সময় জয়ের জন্য যথেষ্ট মনে হচ্ছিল বাংলাদেশের জন্য। কিন্তু টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের দৃশ্যপট যে মাত্র কয়েক বলের ব্যবধানেই বদলে যেতে পারে সেটাই মনে করিয়ে দিলেন আফগান বামহাতি ব্যাটার নাজিবুল্লাহ জাদরান।

১২৮ রান টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমেও শেষ চার ওভারে আফগানদের জয়ের জন্য প্রয়োজন ছিল ওভারপ্রতি ১১ রান করে।

শারজাহর ধীরগতির উইকেটে এটা যথেষ্ট কষ্টসাধ্য হলেও আফগান তারকা নাজিবুল্লাহ সেই কঠিন কাজটাই করে দেখালেন সহজ করে।

১৭তম ওভারে মোস্তাফিজুর রহমানকে ১৭ রান হজম করিয়ে ১৮তম ওভারে সাইফউদ্দিনকে খরচ করালেন ২২ রান। দুই ওভারেই ম্যাচ থেকে ছিটকে গেল বাংলাদেশ।

৯ বল হাতে রেখেই জয়ের বন্দরে পৌছে গেল আফগানরা।ম্যাচ শেষে টাইগার অধিনায়ক সাকিবও মানছেন, শেষের ওই দুই ওভারেই ম্যাচ হাতছাড়া হয়েছে বাংলাদেশের।

বাংলাদেশ অধিনায়ক বলেন, এটা কঠিন হয়ে যায় যখন আপনি প্রথম ৭-৮ ওভারের মধ্যেই চারটি উইকেট হারাবেন। আমরা লক্ষ্য থেকে প্রায় ১০-১৫ রান কম সংগ্রহ করতে পেরেছি।

তারপরও বোলাররা ভালো করেছে। কিন্তু শেষে কিছু ওভারে নাজিবুল্লাহর দূর্দান্ত ব্যাটিংয়ে ম্যাচটি আমাদের হাতছাড়া হয়েছে।সাকিব আরও বলেন, টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে যিনি সেট হবেন,

তার দায়িত্ব ম্যাচটা শেষ করে আসা। আমি ভেবেছিলাম ম্যাচটি আমাদের হাতেই আছে, যখন শেষ ৬ ওভারে আফগানদের জয়ের জন্য ৬০ রান প্রয়োজন ছিল।

নাজিবুল্লাহ সেই কাজটিই করেছে। আমরা জানতাম সে বিধ্বংসী ব্যাটার। ম্যাচ জয়ের কৃতিত্ব তারই প্রাপ্য।মোসাদ্দেকের ব্যাটিং প্রসঙ্গে টাইগার অধিনায়ক বলেন, ব্যাটার হিসেবে মোসাদ্দেক আমাদের জন্য তার কাজটা করেছে। কিন্তু এটা আমাদের জয়ের জন্য যথেষ্ট হয়নি।