পার্থ মজুমদারের দাবি, দ্বিতীয় বিয়ে করেননি এস আই টুটুল

গত জুলাই মাসে সংগীতশিল্পী এস আই টুটুল জানান, যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী শারমিন সিরাজ সোনিয়াকে বিয়ে করেছেন তিনি। বিয়ের বিষয়টি গণমাধ্যমে স্বীকারও করেন সোনিয়া-টুটুল।

কিন্তু হঠাৎ সোশ্যাল মিডিয়ায় জোর গুঞ্জন উড়ছে, টুটুল-সোনিয়া বিয়ে করেননি।এস আই টুটুল বর্তমানে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থান করছেন।

তার হোয়াটসঅ্যাপে চেষ্টা করেও যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি। তবে টুটুলের বিয়ে নিয়ে মুখ খুলেছেন তার ঘনিষ্ঠজন, সংগীতশিল্পী পার্থ মজুমদার।

তিনি জানান, টুটুল-সোনিয়া বিয়ে করেননি।বুধবার (৩১ আগস্ট) পার্থ মজুমদার তার ফেসবুকে দীর্ঘ একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। তাতে এই শিল্পী বলেন—‘‘আমি টুটুলকে সরাসরি প্রশ্ন করেছিলাম,

তুমি কী বিয়ে করেছো? ও আমাকে বলেছে, ‘না, বিয়ে করিনি। তবে হয়তো করব।’ আমার কাছে তার লেখাও আছে, কথা আছে।

কিন্তু কারো বিশ্বাস করে লেখা, নিজের একান্ত কথা, প্রকাশ করার মতো বেঈমানী আর কিছু নাই। তাই সে কাজটি করলাম না।’’

বিয়ে না করার বিষয়টি জোর দিয়ে পার্থ মজুমদার বলেন, ‘‘আমি টুটুলকে বলেছি, বিয়ে করলে করেছো; না করলে না করেছো তা একান্ত তোমার ব্যাপার।

আমার কাছে তুমি এমন করে বলছো কেন? ও আমাকে বলেছে, ‘দাদা আমি বিয়ে করিনি। আমি অন্তত তোমাকে মিথ্যা কথা বলব না।’ এখন সে যদি মিথ্যা কথা বলে থাকে, সেটা তার বিষয়।’’

সোনিয়ার কাছে টাকা চেয়েছিলেন টুটুল। এ নিয়ে দ্বন্দ্ব শুরু হয়েছে বলে জোর গুঞ্জন উড়ছে। এ বিষয়ে পার্থ মজুমদার বলেন, ‘সবাই কর্মক্ষেত্রে তার স্বার্থ দেখে।

কিছু ক্ষেত্রে সে-ও তাই, সে বিষয়ে না যাই। গত ১৭ বছরের চলার পথে আমার চোখের সামনে কখনো কাউকে প্রতারণা করতে দেখিনি বা কারো ক্ষতি করে টাকা-পয়সা উপার্জন করতেও দেখিনি।’

সোনিয়ার কাছে টাকা চাওয়ার বিষয়ে পার্থ মজুমদার বলেন, ‘বলা হচ্ছে, ব্যবসা করবে বলে নতুন বউয়ের কাছে টাকার জন্য চাপ দিচ্ছে। এটা আমার বিশ্বাস হয় না।

আমি ওই টুটুলকে জানি না। এসব কথা অসম্মানজনক মনে হয়েছে। তবে মানুষ বদলে যায়। তা যদি করে থাকে, আমি আমাকেই ক্ষমা করতে পারব না।’

১৯৯৯ সালের ১৯ জুলাই বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী এস আই টুটুল ও অভিনেত্রী তানিয়া আহমেদ। দীর্ঘ পাঁচ বছর আলাদা থাকার পর গত বছরের শেষের দিকে আনুষ্ঠানিকভাবে এ জুটির বিবাহবিচ্ছেদ ঘটে। এর আগে এ সংসারের ইতি টানার বিষয়টি নিশ্চিত করেন তানিয়া।