অজিদের হারানোর ঐতিহাসিক দিনে নতুন রেকর্ড গড়লেন রায়ান বার্ল

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ঐতিহাসিক জয় তুলে নিয়েছে জিম্বাবুয়ে। সেই ম্যাচে অজিদের গুঁড়িয়ে দিয়েছেন রায়ান বার্ল। একাই তিনি তুলে নিয়েছেন ৫ উইকেট,

তাতে নিজের নাম লিখিয়েছেন রেকর্ড বুকে। ঢুকে গেছেন ইতিহাসে দ্রুততম ৫ উইকেট নেয়ার সংক্ষিপ্ত তালিকায়।শুরুটা করেন তিনি ২৭তম ওভারে ম্যাক্সওয়েলের উইকেট শিকার করে।

সেই ওভারেই তিনি ফিরিয়ে দেন আগরকে। ২৯ তম ওভারে ডেভিড ওয়ার্নার কে ফিরিয়ে দেন ৯৪ রানে! নিজের তৃতীয় ওভারে বোলিং করতে এসে তিনি তুলে নেন মিচেল স্টার্ক এবং জশ হ্যাজলউড কে!

তাতে মাত্র তিন ওভার বা ১৮ বলে তিনি তুলে নেন ৫ উইকেট। এতে করেই তিনি ইতিহাসের পাতায় ঢুকে যান। বলের হিসেবে সবচেয়ে দ্রুত ৫ উইকেট তোলার তালিকায় উঠে আসেন দ্বিতীয় স্থানে।

তার চেয়ে দ্রুত ৫ উইকেট তোলার রেকর্ড রয়েছে শুধুমাত্র শ্রীলংকার কিংবদন্তি ফাস্ট বোলার চামিন্দা ভাসের। ২০০৩ সালে বিশ্বকাপে তিনি বাংলাদেশের বিপক্ষে যা করেছিলেন সেটা এখনও ইতিহাস!

ম্যাচের প্রথম তিন বলে ৩ উইকেট নিয়ে হ্যাটট্রিক করার পাশাপাশি বিরল কীর্তিও গড়েন তিনি। সেই ম্যাচে মাত্র ১৬ বলে ৫ উইকেট তুলে নেন ভাস। ২৫ রান দিয়ে ৬ উইকেট সংগ্রহ করেন সেদিন।

বিশ্বকাপের সেই ম্যাচে বাংলাদেশকে ১০ উইকেটে হারায় শ্রীলঙ্কা।সবচেয়ে দ্রুত ৫ উইকেট নেয়ার তালিকায় নেই কোন বাংলাদেশী এবং নেই কোন ভারতীয় বোলার। তবে একজন রয়েছে পাকিস্তানের। উসমান খান নামক পাকিস্তানি বোলার রয়েছেন এই তালিকায়।

চলুন দেখা যাক এক নজরে সবচেয়ে দ্রুত ৫ উইকেট (বলের হিসেবে) নেয়া ৪ জন ক্রিকেটারের তালিকা –

১. চামিন্দা ভাস -১৬ বল (শ্রীলঙ্কা) বনাম বাংলাদেশ (২০০৩)
২. রায়ান বার্ল -১৮ বল (জিম্বাবুয়ে) বনাম অস্ট্রেলিয়া (২০২২)

৩. টিম ভ্যান ডার গুগটেন -২০ বল (নেদারল্যান্ড) বনাম কানাডা ( ২০১৩)
৪. ওসমান খান -২১ বল (পাকিস্তান) বনাম শ্রীলংকা (২০১৭)