পোর্ট এলিজাবেথে আমি কথা বলব। দেখি আপনারা কী করেন : মাঠে নেমে আম্পায়ারকে হুমকি দিয়ে বললেন তামিম ইকবাল

বাংলাদেশ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকার মধ্যকার প্রথম টেস্টের ম্যাচের চতুর্থ দিনে আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত নিয়ে উঠেছে নানা প্রশ্ন।

স্বয়ং বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান এমন আম্পায়ারিংয়ের কঠোর সমালোচনা করেছেন।যেখানে বাংলাদেশের কয়েকটি সিদ্ধান্ত নাকচ করে দিয়েছেন অন-ফিল্ড আম্পায়ার স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকার আড্রিয়ান হোল্ডস্টক ও মারাইস ইরাসমস।

যেটা নিয়ে এখন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হচ্ছে নানা আলোচনা। তবে সেই আলোচনা আরো গভীর হয়েছে সাকিব আল হাসানের টুইটে।

স্বাগতিক আম্পায়ারদের দ্বারা পরিচালিত ডারবান টেস্টের আম্পায়ারিং নিয়ে মোটেও সন্তুস্ট নন সাকিব। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে এ বিষয়ে কথা বলেছেন তিনি।

এছাড়াও আম্পায়ারদের দায়িত্ব নিয়ে কঠোর সমালোচনা করেছেন খালেদ মাহমুদ সুজন।এমনকি গতকাল চতুর্থ দিনের খেলা শেষে মাঠে নেমে আম্পেয়ারদের সাথে কথা বলেছেন তামিম ইকবাল।

জানা গেছে সেখানে দুই অ্যাম্পিয়ারের সাথে অনেকক্ষণ দাঁড়িয়ে কথা বলেছেন তামিম।আম্পায়ারদ্বয়ের, বিশেষ করে এরাসমাসের বেশ কয়েকটি ‘কল’ বাংলাদেশের বিপক্ষে গেছে।

তার ওপর প্রোটিয়াদের ক্রমাগত ‘স্লেজিং’য়ের শিকার হওয়া বাংলাদেশ দলের কেউ প্রতিবাদ করলে পক্ষপাতমূলক আচরণ করেছেন আম্পায়ারদ্বয়। দিনের খেলা শেষে এরাসমাসের কাছে সেসবেরই প্রতিবাদ করেছেন তামিম।

দলের একটি সূত্র জানিয়েছে, “তামিম এরাসমাসকে বলেছে, ‘আমাদের দলের তরুণ প্লেয়ারদের সঙ্গে আপনারা যে আচরণ করেছেন, সেটা ঠিক না।

একটা জুনিয়র ক্রিকেটারকে (এবাদত হোসেন) আপনারা দুইজন মিলে সতর্ক করেছেন।“কিন্তু দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেটাররা যে প্রত্যেকদিন যা তা বলছে, তখন কিছু বলছেন না কেন?

আমাদের বলছেন ছেলেরা জুনিয়র বলে? ঠিক আছে, পোর্ট এলিজাবেথে আমি কথা বলব। দেখি আপনারা কী করেন!’ একদম ঠিক করেছে তামিম। ওরা (আম্পায়ার) খুব বাড়াবাড়ি করছে।”